বৃহস্পতিবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ০৮:১৭ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
আমাদের নিউজে আপনাকে স্বাগতম... আপনি ও চাইলে আমাদের পরিবারের একজন হতে পারেন । আজই যোগাযোগ করুন ।
ব্রেকিং নিউজ :
‘চট্টগ্রামে আওয়ামী লীগই আওয়ামী লীগের শত্রু’ – ওবায়দুল কাদের সংসদে দাঁড়িয়ে সবার কাছে ক্ষমা চাইলেন রাঙ্গা টেন্ডার নিয়ে সংঘর্ষে যুবলীগ কর্মী নিহত,আহত ৪ ব্যবসায়ীর স্ত্রীকে ‘ভাগিয়ে নিয়ে’ বিয়ে করলেন মেয়র দ্বিতীয়বার বিয়ের পিড়িতে বসলেন হুমায়ূন আহমেদের প্রথম স্ত্রী রেলওয়ের গেটম্যানকে ইউএনওর মারধর, থানায় অভিযোগ সাতকানিয়া উপজেলা বিএনপির সভাপতি হতে যাচ্ছেন জামাল হোসেন সাতকানিয়ায় রামপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষার্থীদের বিদায় সম্বর্ধনা অনুষ্টিত। নেত্রীকে ভালোবাসি নেত্রী আমার কাছে জীবন্ত আইডল:রিজিয়া রেজা চৌধুরী বিকশিত নারী নেটওয়ার্ক ১১ সদস্য বিশিষ্ট সুনামগঞ্জ জেলা কমিটি গঠিত হয়েছে
ভারতের আসাম রাজ্যে ভয়াবহ বন্যা

ভারতের আসাম রাজ্যে ভয়াবহ বন্যা

Advertisements

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বিবিসিনিউজ২৪ :  ভারতের আসাম রাজ্য ভয়াবহ বন্যার কবলে পড়েছে। রাজ্যটির ২৭টি জেলার মধ্যে ২১টিতেই ভয়াবহ বন্যার কারণে ৮ লাখ মানুষ গৃহহীন হয়ে পড়েছে। কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে টেলিভিশন চ্যানেল এনডিটিভির এক অনলাইন প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।
আসামের ওপর দিয়ে প্রবাহিত ব্রহ্মপূত্র নদ ভয়ংকর হয়ে উঠেছে। বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে পানি। আসামের রাজধানী গোহাটি এর কবলে পড়েছে। এ ছাড়া আরও পাঁচটি নদীর পানিও বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এর ফলে সৃষ্ট বন্যার কারণে ৬ জন নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।
চলতি সপ্তাহে বৃষ্টি আরও বাড়তে পারে আবহাওয়া দফতরের এমন পূর্বাভাসের পর গোটা আসামেই ফেরি চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। কর্মকর্তারা বলছেন, বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে ২৭ হাজার হেক্টর ফসলি জমি। রাজ্যের ৬৮টি রিলিফ ক্যাম্পে ৭ হাজার মানুষকে সরিয়ে নেয়া হয়েছে।
আসামের পাশের অরুণাচল প্রদেশের টাওয়াং নামক এলাকায় বন্যার কারণে সৃষ্ট ভূমিধসে দুটি স্কুলপড়ুয়া শিশুর মৃত্যু হয়েছে। গত মঙ্গলবার থেকে শুরু হওয়া ভারী বৃষ্টিপাতের জেরে রাজ্যের বিভিন্ন স্থানে ভূমিধসের কারণে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে অনেক এলাকা। এ ছাড়া প্রদেশটির সঙ্গে সীমান্তযুক্ত চীনেও বন্যা শুরু হয়েছে। গত এ সপ্তাহে দেশটিতে ৬১ জন প্রাণ হারিয়েছেন।
আসামের চা-বাগান অধ্যূষিত উঁচু এলাকা ধেমরাজ ও লক্ষ্মীপুর এবং নিচু এলাকা বনগাইগাঁ ও বারপেতাও বন্যার কবলে পড়েছে। কর্মকর্তারা বলছেন, উঁচু এলাকার বন্যার পানি বিভিন্নভাবে নিচের দিকে প্রবাহিত হচ্ছে। তাই আসামের নিচু এলাকাগুলোতে বন্যা পরিস্থিতি সবচেয়ে নাজুক।
রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ দয়াল ভিডিও কলের মাধ্যমে বন্যা পরিস্থিতি খোঁজখবর নেয়ার জন্য তিগ্রস্ত জেলাগুলোর সহকারী কমিশনারদের সঙ্গে কথা বলেছেন। তিনি সহকারী কমিশনারদের কন্ট্রোল রুম চালু করার নির্দেশ দিয়েছেন। যাতে করে জররি প্রয়োজনে তিগ্রস্ত মানুষদের সহায়তা করা যায়।

আপনার মতামত দিন

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Advertisements

Comments are closed.

Advertisements

অনলাইন ভোটে অংশগ্রহন করুন




Advertisements

Our English Site

© All rights reserved © 2017-27 Bbcnews24.com.bd
Theme Developed BY ANI TV Team