সাতক্ষীরার দেবহাটার হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রতিবন্ধীর সংবাদ সম্মেলন!

0
24
সাতক্ষীরার দেবহাটার হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রতিবন্ধীর সংবাদ সম্মেলন!
সাতক্ষীরার দেবহাটার হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রতিবন্ধীর সংবাদ সম্মেলন!

সাতক্ষীরার দেবহাটার হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা

পেতে প্রতিবন্ধীর সংবাদ সম্মেলন!

ফিরোজ জোয়ার্দ্দার,সাতক্ষীরা জেলা প্রতিনিধি: সাতক্ষীরার দেবহাটার খাসখামারে বহুল আলোচিত আওয়ামীলীগ নেতা মোজাফ্ফারের হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রতেবেশী বৃদ্ধ প্রতিবন্ধীর সংবাদ সম্মেলন করেছে।মঙ্গলবার দুপুরে দেবহাটা রিপোর্টাস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন কুলিয়া ইউনিয়নের খাসখামার গ্রামের মৃত ইমান আলী সরদারের পুত্র প্রতিবন্ধী মোসলেম সরদার (৬১)। এসময় তিনি লিখিত বক্তব্যে বলেন, খাসখামার গ্রামের ইব্রাহিম গাজীর পুত্র মোজাফ্ফার হোসেন খোকন এলাকায় মোখোশধারী, সন্ত্রাসী ও ফেন্সিডিল ব্যবসায়ী।

মোজাফ্ফরের পিতা ইব্রাহিম গাজী একজন রাজাকার ছিলেন। সে ১৯৭১ সালে পাকিস্তানি খান সেনাদের সাথে যুক্ত হয়ে খাসখামার গ্রামের হক ও বাকা এবং কোমরপুর গ্রামের সাত্তার সরদারকে হত্যা করে।
মোজাফ্ফারের পিতা ইব্রাহিম গাজী আমার পিতাকে পাকহানাদার বাহিনীর হাতে তুলে দিলে কৌশালে তিনি বেঁচে যান। এছাড়া মোজাফ্ফার হাড়দ্দাহা গ্রামের আনারুলকে অপহরণ করে তার পিতা মাহবুবের কাছ থেকে ১০লাখ টাকা আদায় করে। বৈচনা গ্রামের সুলতান গাজীর পুত্র আব্দুল করিকে একটি রাইচ মিল করে দেওয়ার এবং জামাতার চাকুরী দেওয়ার প্রতিশ্রতি দিয়ে ৭লাখ ৬০হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়।
মোজাফ্ফার এক সময় ভূমি অফিসের নায়েব সেজে বৈচনা গ্রামের মৃত মোখছেদ গাজীর পুত্র আব্দুল মালেক গাজীর কাছ থেকে ৬৫ হাজার টাকা আদায় করে।

এছাড়া মোজাফ্ফার ধর্ষণকারী ও বহুবিবাহের নায়ক। সে প্রভাবশালী হওয়ায় তার ভয়ে এলাকায় কেউ প্রতিবাদ করতে সাহস পায় না। তাছাড়া তার বিরুদ্ধে কেউ প্রতিবাদ করতে আসলে তার নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করেন তিনি।তেমনটি ঘটেছে গত কয়েকদিন আগে। আমি প্রতিবন্ধী হওয়ায় কোন কাজ করতে পারি না। তাই অন্যদের সহযোগীতা নিয়ে জীবনযাপন করি। আমার ১০ শতক জমি নিয়ে মোজাফ্ফারের সাথে সমস্যা দেখা দিলে আমার ভাতিজা হাফিজুল ইসলাম আমার পক্ষে কথা বলায় তাকে গাঁজা দিয়ে পুলিশের কাছে ধরিয়ে দেয়।

পরে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ফিরিয়ে আনা হয়। এমনকি এ মোজাফ্ফার আমাকে আইনের চোখে অপরাধী করতে ১৩ মার্চ মঙ্গলবার বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করিয়ে আমার সম্মানহানী করেছে। সে আমাকে একের পর এক হয়রানী করে চলেছে। এমনকি সে আমার পরিবারের সদস্যদের ক্ষতি করতে পারে। বর্তমানে আমি পরিবারের সদস্যদের নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছি।
তাছাড়া মোজাফ্ফার আওয়ামীলীগ নেতা সেজে দিনের পরদিন অপরাধ করে চলেছে। তাই আমি মোজাফ্ফারের হাত থেকে রক্ষা পেতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

MAXZIONIT